1. nagorikkhobor@gmail.com : admi2017 :
  2. shobozcomilla2011@gmail.com : Nagorik Khobor Khobor : Nagorik Khobor Khobor
রবিবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২২, ০৩:৩৫ পূর্বাহ্ন

নির্বাচ‌নি স‌হিংসতা ঘটা‌তে কেউ পার‌বে না- সিএম‌পি ক‌মিশনার

চট্রগ্রাম সংবাদদাতা:
  • আপডেট টাইম : সোমবার, ১৮ জানুয়ারী, ২০২১
  • ৩১৫ বার পঠিত

নির্বাচনি সহিংসতা বা আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতি ঘটাতে কাউ‌কে ছাড় দেওয়া হবে না বলে হুঁশিয়ারি করেছেন চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের (সিএমপি) কমিশনার সালেহ মোহাম্মদ তানভীর। তিনি বলেছেন, বহিরাগত কিংবা স্থানীয় যারাই চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন নির্বাচনকে কেন্দ্র করে সহিংসতা সৃষ্টি করবে তাদের কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না। আমরা নগরীতে পুলিশি কর্মকাণ্ডের ব্যাপ্তি বাড়িয়ে দিয়েছি। পুলিশি টহল, চেকপোস্ট- এগুলো বাড়িয়ে দিয়েছি। যেসব কর্মকাণ্ড আমাদের নির্বাচনকে সহিংস করতে পারে, সেগুলো প্রতিরোধ করার জন্য আমরা আগাম পদক্ষেপ নিয়েছি।

রবিবার (১৭ জানুয়ারি) নগরীর দামপাড়া পুলিশ লাইনে সিএমপি কমিশনারের সম্মেলন কক্ষে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন। চট্টগ্রামে অনুষ্ঠিতব্য বাংলাদেশ-ওয়েস্টইন্ডিজ ক্রিকেট সিরিজের আইনশৃঙ্খলা রক্ষা সংক্রান্ত প্রস্তুতি বিষয়ে অবহিত করতে এই সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়।

সালেহ মোহাম্মদ তানভীর বলেন, যারা ঘোষিত অপরাধী, বিভিন্ন মামলার ওয়ারেন্টভুক্ত অথবা অবৈধ অস্ত্রধারী হিসেবে চিহ্নিত, আমরা তাদের নজরদারিতে রেখেছি এবং পদক্ষেপ নিচ্ছি। আমাদের বার্তা পরিষ্কার- আমরা কাউকেই নির্বাচনি সহিংসতা বা আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতি ঘটাতে দেব না। একটি ঘটনা ঘটেছে, আমরা কঠোর পদক্ষেপ নিতে বিন্দুমাত্র সময় নেইনি। কাজের মাধ্যমে আমরা আমাদের শক্ত অবস্থান প্রমাণ করবো।

এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, প্রবেশমুখে আমরা চেকপোস্ট বসিয়েছি। আবাসিক হোটেলগুলোতে আমরা স্পেশাল ড্রাইভও দিচ্ছি। সাময়িকভাবে দুষ্কর্ম করার জন্য কেউ এসে কোথাও আশ্রয় নিয়েছে কি না সেটা আমরা নিয়মিত খোঁজখবর নিচ্ছি। অপরাধ করার উদ্দেশ্য নিয়ে বহিরাগত কেউ এসে চট্টগ্রামে অবস্থান করলে আমরা কঠোরভাবে প্রতিরোধ করবো। আমরা স্পষ্ট বার্তা দিতে চাচ্ছি- কারা আসতে পারে কিংবা কোন জেলা থেকে আসতে পারে সেটা আমরা খোঁজখবর নিচ্ছি।

তিনি আরও বলেন, শহরে আমরা চেকপোস্ট তিনগুণ বাড়িয়ে দিয়েছি। ব্লকরেইড করা হচ্ছে। সবকিছু আমরা করছি, পুলিশি কার্যক্রমকে ব্যাপকভাবে ছড়িয়ে দিয়ে সবার মাঝে একটি বার্তা পৌঁছে দেওয়া যে- আমরা কাউকে ছাড় দেবো না। যিনি অপরাধ করবেন, তার বিরুদ্ধে আইনত ব্যবস্থা নিতে বিন্দুমাত্র দ্বিধা করবো না। অপরাধ যিনি করবেন, তাকে অবশ্যই দায়দায়িত্ব নিতে হবে, কেউ ছাড় পাবে না।

সালেহ মোহাম্মদ তানভীর বলেন, আমরা কোনও পর্যায়েই অস্ত্রের ব্যবহার আশা করছি না। এটা ঠেকাতে আমরা চেকপোস্ট বাড়িয়েছি। আমাদের চেষ্টা থাকবে সর্বোচ্চ যে, কোনোভাবেই যেন অস্ত্রের ব্যবহারের মাধ্যমে কোনও ধরনের সংঘাত ছড়িয়ে না পড়ে। পেশাদারিত্বের সাথে আমরা যে কোনও পরিস্থিতি মোকাবেলার প্রস্তুতি নিয়েছি। আগামী দিনগুলোতে আমরা নিশ্চয় কাজের অগ্রগতি প্রমাণ করতে পারবো।

নির্বাচনে ৯ হাজার পুলিশ মোতায়েন করা হবে জানিয়ে সিএমপি কমিশনার বলেন, ‘নির্বাচন কমিশন থেকে আমরা একটা গাইডলাইন পাবো। পুলিশের কিছু ফোর্স কেন্দ্রভিত্তিক থাকবে। পাশাপাশি আমরা ওয়ার্ড ও থানাভিত্তিক মোবাইল টিম রাখবো। ডিবি, কাউন্টার টেরোরিজম টিম, সোয়াত টিম টহলে থাকবে। এরপর কোন কেন্দ্রে কত আনসার থাকবে সেটা নির্বাচন কমিশন নির্ধারণ করবে।বি‌ট্রি

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর..
© All rights reserved © 2020 nagorikkhobor.Com
Theme Developed BY ThemesBazar.Com